রবিবার রাত ১:৫৭

২রা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

৫ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি

১৭ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ শরৎকাল

ভ্যাকুয়াম বোমা কী? রাশিয়ান এই অস্ত্র কেন এত ভয়ঙ্কর?

মানবাধিকার সংগঠন ও ইউক্রেনের দূত সোমবারই আমেরিকাকে জানায় ইউক্রেনীয়দের উপর ক্লাস্টার বোমা এবং অত্যন্ত ভয়ানক ভ্যাকুয়াম বোমা ব্যবহার করছে রাশিয়ার। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল এবং হিউম্যান রাইটস ওয়াচ সহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থা এই অস্ত্রের নিন্দাও করেছে।

সংস্থাগুলি বলেছে যে, রাশিয়ান বাহিনী ব্যাপকভাবে নিষিদ্ধ ক্লাস্টার যুদ্ধাস্ত্র ব্যবহার করেছে বলে মনে হচ্ছে। অ্যামনেস্টি তাদের বিরুদ্ধে উত্তর-পূর্ব ইউক্রেনের একটি প্রিস্কুলে হামলার অভিযোগ এনেছে যেখান সাধারণ মানুষ আশ্রয় নিয়েছিল। এদিকে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ইউক্রেনের রাষ্ট্রদূত ওকসানা মার্কারোভা অভিযোগ করেছেন যে মস্কো একটি থার্মোবারিক অস্ত্র ব্যবহার করেছে, যা ভ্যাকুয়াম বোমা নামে পরিচিত।

ভ্যাকুয়াম বোমা বা থার্মোবারিক অস্ত্র হল উচ্চ তাপমাত্রার একটি বিস্ফোরক। এই বোমা বিস্ফোরণের ফলে বাড়তে থাকে তাপমাত্রা। এটি বিস্ফোরণ ঘটালে আশপাশের বায়ু থেকে অক্সিজেনের মাত্রা কমিয়ে দেয়। অক্সিজেনের মাত্রা কমে যাওয়ার ফলে সেখানে প্রবল তাপ উৎপন্ন হয়। যা অনেকক্ষণ স্থায়ী। বিস্ফোরণে প্রচণ্ড উত্তাপের সঙ্গে সঙ্গে তৈরি হয় ভয়ংকর শক ওয়েভ। যার গতি এত তীব্র যে বাড়িঘর থেকে মানুষ– সমস্ত কিছু মুহূর্তের মধ্যে ধুলিষ্যাৎ হয়ে যায়। থার্মোবারিক অস্ত্রগুলি এমন একটি হাতিয়ার যা লক্ষ্যবস্তুতে তাপমাত্রা এবং চাপের প্রভাব ব্যবহার করে।

এটি অ্যারোসল বোমা নামেও পরিচিত, দু’ধাপে এই অস্ত্রপ্রয়োগ করা হয়। প্রথম চার্জে কার্বন-ভিত্তিক জ্বালানি থেকে ক্ষুদ্র ধাতব কণাতে খুব সূক্ষ্ম উপাদান দিয়ে তৈরি অ্যারোসল বিতরণ করে। দ্বিতীয় চার্জটি সেখানকার অক্সিজেন চুষে একটি শক ওয়েভ তৈরি করে এবং তার লক্ষ্যের চারপাশে একটি শূন্যতা তৈরি করে। বিশেষজ্ঞরা সতর্ক করেছেন যে, ভ্যাকুয়াম বোমার বিস্ফোরণ তরঙ্গ বাকি বিস্ফোরকগুলির তুলনায় উল্লেখযোগ্যভাবে দীর্ঘস্থায়ী হয়।







© সকল স্বত্ব- সমাজ নিউজ -কর্তৃক সংরক্ষিত
২২ সেগুনবাগিচা, ৫ম তলা, ঢাকা- বাংলাদেশ।
ই-মেইল: news@somajnews.com, ওয়েব: www.somajnews.com
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।

ডিজাইন: একুশে